Header Border

ঢাকা, রবিবার, ১৯শে মে, ২০২৪ ইং | ৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ (গ্রীষ্মকাল) ৩২.৯৬°সে
শিরোনাম
সিরাজগঞ্জে ফেন্সিডিলসহ দুই মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার সাংবাদিক মহির উদ্দিন আর নেই রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ে ফটোগ্রাফি সোসাইটির কমিটি গঠিত জিনের বাদশা প্রতারক চক্রের ৫ সদস্য গ্রেফতার, ৬টি সোনালী রংয়ের মুর্তি উদ্ধার সিরাজগঞ্জ/ মাটির নিচে চাপাপড়া শ্রমিককে ২ ঘন্টাপর জীবিত উদ্ধার সিরাজগঞ্জ সদরে দুই চেয়ারম্যান প্রার্থীকে শোকজ থানার ভিতর প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থীর ওপর হামলা, শোকজ আমিনুল ইসলাম বৃদ্ধ বয়সে সঙ্গ মেটাতে বৃদ্ধাশ্রমের ভূমিকা বাড়ছে-দিপু মনি বেলকুচি/ থানা চত্বরে হট্টগোল, চেয়ারম্যান প্রার্থীর ১০ কর্মী গ্রেফতার বেলকুচি/ ভোটের মাঠে ত্রাসের রাজত্বে এমপির দুই ভাই!

সিলেটে বন্যা পরিস্থিতি ভয়াবহ রূপ নিচ্ছে

জেলা প্রতিনিধি, সিলেট :

সিলেটের বন্যা পরিস্থিতি ক্রমেই ভয়াবহ রূপ নিচ্ছে । হু হু করে বাড়ছে পানি। এতে করে সিলেট নগরীর বেশির ভাগ এলাকার বাসাবাড়িতে ঢুকে পড়েছে পানি। চরম দুর্ভোগে রয়েছে বন্যাকবলিত মানুষেরা। বন্যার্তদের মাঝে খাবার সংকট দেখা দিয়েছে।

ভারতের উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢল অব্যাহত আছে। যার ফলে সিলেটের নদ-নদীর পানি বাড়ছে। দু-একটি স্থানে নদীর পানি কিছুটা কমলেও জেলার সার্বিক বন্যা পরিস্থিতি খারাপ।

সিলেট-জকিগঞ্জ সড়কের উপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে বন্যার পানি। যার ফলে বন্ধ হয়ে যেতে পারে যান চলাচল। পানি বাড়তে থাকলে পরিস্থিতির আরও অবনতি হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

বুধবার সুরমা নদীর পানি বিপৎসীমার ১৫৯ সে. মি. ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছিল। আগের দিন মঙ্গলবার পানি বিপৎসীমার ১৪২ সে. মি. ওপর প্রবাহিত হয়।

পানি উন্নয়ন বোর্ডের তথ্য অনুযায়ী- বুধরাব (১৮ মে) সারা দিন সিলেটে মাত্র ৬০ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হলেও সুরমা, কুশিয়ারা, সারি, লোভা ও ধলাই নদীতে পাহাড়ি ঢলে পানি বৃদ্ধি পেয়েছে।

স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, ভয়াবহ বন্যার কারণে পুরো জেলায় নৌকা সংকট দেখা দিয়েছে। এ কারণে অনেক মানুষ ঘর থেকে বের হতে পারছে না। বন্যা কবলিত লোকজনকে দ্রুত আশ্রয়কেন্দ্রে নিয়ে আসতে প্রশাসনের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন ভুক্তভোগীরা।

প্লাবিত বিভিন্ন এলাকা ঘুরে দেখা গেছে, অনেকের ঘরের ভেতর দুই থেকে তিন ফুট পানি। অনেকে পরিবার নিয়ে খাটের উপরে বসবাস করছেন। ঘরে খাবার নেই। নলকূপ পানির নিচে তলিয়ে যাওয়ায় বিশুদ্ধ পানি পাচ্ছেন না। সরকারি বা বেসরকারিভাবে ত্রাণ বিতরণের কোন তৎপরতা দেখা যায়নি। এই অবস্থায় অত্যন্ত কষ্টে আছেন বন্যা কবলিতরা।

এদিকে, সৃষ্ট বন্যায় সুনামগঞ্জ জেলার দুই শতাধিক প্রাথমিক বিদ্যালয় প্লাবিত হয়েছে। এ কারণে ২৮টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে পাঠদান বন্ধ রয়েছে।

সুনামগঞ্জ জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা এসএম আব্দুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, জেলার দোয়ারাবাজার ও ছাতক উপজেলা প্লাবিত হয়েছে বেশি। এছাড়াও সুনামগঞ্জ সদর, তাহিরপুর, শান্তিগঞ্জ উপজেলাসহ পাঁচটি উপজেলার ২২০টি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় প্লাবিত হয়েছে। এর মধ্যে ২৮টি বিদ্যালয়ে শিক্ষার্থীরা না আসতে পারলেও শিক্ষকতা নিয়মিত বিদ্যালয়ে যাচ্ছেন।

সিলেট জেলা প্রশাসন জানিয়েছে, আগামী ২৩ মে পর্যন্ত বৃষ্টিপাত হবে, যার কারণে বাড়বে পানি, ভয়াবহ হয়ে উঠবে বন্যা পরিস্থিতি।

সুস/এসবাংলা

SHARE

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

সাগর-রুনি হত্যাকাণ্ডের তদন্তে দীর্ঘসূত্রিতা লজ্জা দায়িত্বহীনতা এবং পক্ষপাতিত্বের ঈঙ্গিত বহন করে
বাংলাদেশে বিনিয়োগে যুক্তরাজ্যের ব্যবসায়ীদের আমন্ত্রণ প্রধানমন্ত্রীর
 নতুন আইজিপি কে হচ্ছেন
হু হু করে বাড়ছে চালের দাম
জুনে সড়কে মোটরসাইকেলে বেশি দুর্ঘটনা
মহাসড়কে ঈদে মহাআতঙ্ক মোটরসাইকেল

আরও খবর

Android App