Header Border

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৫শে এপ্রিল, ২০২৪ ইং | ১২ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ (গ্রীষ্মকাল) ২৮.৯৬°সে
শিরোনাম
সিরাজগঞ্জ/ আমাদের বাংলা সাহিত্যের বিশাল ভান্ডার আছে- হেনরী সিরাজগঞ্জ/ স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের ঘটনায় যুবক গ্রেফতার সিরাজগঞ্জে পুলিশের উপর হামলা, মদ ও অস্ত্রসহ আওয়ামীলীগ নেতার স্ত্রী আটক সিরাজগঞ্জ পৌর যুবলীগকে ঢেলে সাজাতে আহবায়ক হতে চান যুবনেতা আবু মুসা ঈদের আগের দিনেই ফাঁকা বঙ্গবন্ধু সেতু পশ্চিম মহাসড়ক ঈদযাত্রা/ ২৪ ঘন্টায় বঙ্গবন্ধু সেতুতে টোল আদায় ৩ কোটি নাড়ীর টানে ঘরমুখো মানুষের স্বস্তির ঈদযাত্রা সিরাজগঞ্জ/ ট্রাক-পিকআপে ঝুকি নিয়ে বাড়ি আসছে স্বপ্ল-আয়ের মানুষ সিরাজগঞ্জ/ ঈদযাত্রায় মহাসড়কে খুলে দেওয়া হলো ৩ ওভারপাস এক সেতু সিরাজগঞ্জে চোর চক্রের ৪ সদস্য আটক, চুরির মালামাল উদ্ধার 

স্ত্রীকে বিক্রি করতে ব্যর্থ হয়ে খুন, স্বামী গ্রেপ্তার

জেলা প্রতিনিধি, যশোর :

চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে স্ত্রী সালমা খাতুনকে (২৪) ভারতে নিয়ে বিক্রি করতে ব্যর্থ হয়ে হত্যা করে দেশে ফিরে আসেন স্বামী কামরুল ইসলাম। দেশে ফিরে তিনি প্রচার করতে থাকেন, স্ত্রীকে হারিয়ে ফেলেছেন। তবে তার আচরণ সন্দেহজনক হওয়ায় বুধবার (১১ মে) যশোর কোতোয়ালি থানায় মানবপাচার প্রতিরোধ ও দমন আইনে মামলা করেন সালমার বাবা শহিদুল ইসলাম। রাতে অভিযুক্ত কামরুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করে যশোর জেলা গোয়েন্দা পুলিশ।

কামরুল ইসলাম যশোর সদর উপজেলার বানিয়ারগাতী গ্রামের ইউনুস আলীর ছেলে।

জেলা গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রুপন কুমার সরকার জানান, গত ১৫ এপ্রিল কামরুল ইসলাম (৩০) তার স্ত্রী সালমা খাতুনকে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে ভারতে নিয়ে যায়। এরপর ৮ মে স্ত্রীকে ছাড়াই দেশে ফিরে আসেন। স্ত্রীর পরিবারের লোকজন তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করলে খারাপ আচরণ করে বাড়ি থেকে বের করে দেয় সে। ভারতে সালমার ব্যবহৃত মোবাইল ফোনও বন্ধ পায় পরিবারের লোকজন।

এ ঘটনায় সালমার বাবা শহিদুল ইসলাম বুধবার কোতোয়ালি মডেল থানায় মানবপাচার প্রতিরোধ ও দমন আইনে মামলা করেন। ঘটনাটি চাঞ্চল্যকর হওয়ায় রহস্য উদঘাটন ও ভিকটিমকে উদ্ধারের দায়িত্ব পায় কোতোয়ালি থানা পুলিশ ও ডিবি পুলিশ। পুলিশ তদন্তে নেমে জানতে পারে, ভিকটিম সালমাকে ভারতের গুজরাটে বিক্রির চেষ্টায় ব্যর্থ হয়ে হত্যা করে কামরুল দেশে পালিয়ে আসে। বুধবার রাতে পুলিশ বসুন্দিয়া এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে কামরুলকে গ্রেপ্তার করে।

জিজ্ঞাসাবাদে কামরুল জানিয়েছেন, স্ত্রী সালমাকে চাকরির প্রলোভন দিয়ে ভারতের গুজরাটে নিয়ে বিক্রির চেষ্টা করে ব্যর্থ হন। সেখানে একটি ভাড়া বাসার মধ্যে নাকে-মুখে আঘাত ও শ্বাসরোধ করে হত্যা করে লাশ ফেলে রেখে দেশে পালিয়ে আসেন। এ ঘটনায় অভিযুক্তের তিনটি পাসপোর্ট, ভিকটিমের পাসপোর্ট ও ভিকটিমের মোবাইল ফোন উদ্ধার করা হয়েছে।

নিহত সালমা খাতুনের বাবা শহিদুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, দুই বছর আগে তার মেয়ের সঙ্গে পাশের গ্রামের কামরুলের বিয়ে হয়। তাদের সন্তান না হওয়ায় ডাক্তার দেখানোর নাম করে কামরুল ১৫ এপ্রিল সালমাকে ভারতে নিয়ে যায়। রোববার কামরুল ভারত থেকে ফিরে এসে তাদের জানায়, সালমাকে হারিয়ে ফেলেছে সে। এ সময় তার আচরণে সন্দেহ হলে পুলিশে অভিযোগ দেওয়া হয়।

এআর/এসবাংলা

SHARE

আপনার মতামত লিখুন :

আরও পড়ুন

সিরাজগঞ্জে তিনজনকে হত্যার দায়ে যুবকের মৃত্যুদন্ড 
সিরাজগঞ্জে বাস ও সিএনজি মুখোমুখি সংঘর্ষে মা-মেয়ে নিহত
সিরাজগঞ্জ জেলা আইনজীবী সমিতির নির্বাচনে সভাপতি লিটন, সম্পাদক মাসুদ
তাড়াশে স্কুল ছাত্রী তুষি হত্যাকারীর ফাঁসির দাবিতে মানববন্ধন
সিরাজগঞ্জে বাবা-মা ও মেয়েকে হত্যার ঘটনায় মামলা
সিরাজগঞ্জে একই পরিবারে তিনজনকে গলা কেটে হত্যা

আরও খবর

Android App